আলোকিত রাঙামাটি
  • মঙ্গলবার   ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০ ||

  • আশ্বিন ১৪ ১৪২৭

  • || ১০ সফর ১৪৪২

সর্বশেষ:
রাঙামাটিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৪তম জন্মদিন পালিত সরকার তথ্য অধিকার আইন নিশ্চিত করার ফলে বর্তমানে জনগণকে তথ্য পেতে এখন আর কোন বাধা পেতে হয় না বলে মন্তব্য করেছেন রাঙামাটি জেলা প্রশাসক এ কে এম মামুনুর রশিদ।
৪৮২

‘আওয়ামী লীগকে পরাজিত করার রাজনৈতিক শক্তি নেই’ 

আলোকিত রাঙামাটি

প্রকাশিত: ৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০  


ঐক্যবদ্ধ আওয়ামী লীগকে পরাজিত করার মতো কোনো রাজনৈতিক দল বা শক্তি বাংলাদেশে নেই বলে মন্তব্য করেছেন দলের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

মঙ্গলবার আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় রাজনৈতিক কার্যালয়ে রংপুর বিভাগীয় সভায় এসব কথা বলেন তিনি।

হাছান মাহমুদ বলেন, নির্বাচনে আওয়ামী লীগ ঐক্যবদ্ধ ছিল বলেই নৌকার প্রার্থীরা ব্যাপক ব্যবধানে বিজয়ী হয়েছে। তবে দলের নেতাকর্মীদের আরো বিনয়ী হতে হবে। 

তিনি আরো বলেন, ঢাকা সিটি নির্বাচনে আপনারা দেখেছেন দলের নেতাকর্মীরা ঐক্যবদ্ধ ছিল এবং ঐক্যবদ্ধ প্রচেষ্টার কারণে বিপুল ভোট পেয়ে আমাদের মেয়র প্রার্থীরা জয়লাভ করেছেন। আওয়ামী লীগের যে সাংগঠনিক শক্তি সেটি ঢাকা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে প্রমাণ করতে আমরা সক্ষম হয়েছি।

বিএনপির সাংগঠনিক দুর্বলতার কারণে মাঠে দেখা যায়নি উল্লেখ করে তিনি বলেন, বিরোধী দল বলেছে, প্রতি কেন্দ্রের বাইরে আওয়ামী লীগের লোকেরা ছিল। বাংলাদেশের সমস্ত নির্বাচনে কেন্দ্রের বাইরে নেতাকর্মীদের ভিড় থাকে। এবারো নির্দষ্ট দূরত্বে আইন মেনে আমাদের দলের ক্যাম্প করা হয়েছিল। সেখানে নেতকার্মীদের জটলা ছিল। প্রতি কেন্দ্রের বাইরে নেতাকর্মীরা স্বতঃস্ফুর্তভাবে উপস্থিত ছিল। অন্যদিকে বিএনপিকে সেভাবে দেখা যায়নি। এটার কারণ হচ্ছে তাদের সাংগঠনিক দুর্বলতা। আমাদের নেতাকর্মীদের প্রতি কেন্দ্রের বাইরে দেখা গেছে এর কারণ হচ্ছে আমাদের সাংগঠনিক শক্তি।

আওয়ামী লীগকে আরো শক্তিশালী করা প্রয়োজন নেতাকর্মীদের জানিয়ে তথ্যমন্ত্রী বলেন, আমাদের সংগঠনকে আরো শক্তিশালী করা প্রয়োজন। একইসঙ্গে আমি আরো মনে করি সংগঠনের মধ্যে নেতাকর্মীদের নৈতিকভাবে সমৃদ্ধ করা প্রয়োজন। সমস্ত জায়গায় যে অবক্ষয় সেই অবক্ষয়ের হাত থেকে রাজনীতিকে মুক্ত রাখতে হবে। সংগঠনের নেতাকর্মীদের যে নৈতিক মনোবল আছে তা বাড়াতে হবে। সেই লক্ষ্য নিয়ে কাজ করতে হবে। জনগণের সমর্থন ছাড়া একদিনও রাষ্ট্রক্ষমতায় থাকতে চাই না। জনগণ সমর্থন দিলে অবশ্যই আমরা আবারো রাষ্ট্রক্ষমতায় আসবো। মানুষ উন্নয়নের কারণে ভোট দেবে।

গত ১১ বছরে যে অভূতপূর্ব উন্নয়ন হয়েছে, সমস্ত বিশ্ব প্রশংসা করছে, পাকিস্তান আক্ষেপ করছে। আন্তর্জাতিক বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের প্রধানরা প্রশংসা করছে।

আলোকিত রাঙামাটি
আলোকিত রাঙামাটি
রাজনীতি বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর