ব্রেকিং:
বাঘাইছড়িতে উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা অস্ত্রের মুখে অপহরণ
  • মঙ্গলবার   ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০ ||

  • ফাল্গুন ১৩ ১৪২৬

  • || ০১ রজব ১৪৪১

সর্বশেষ:
‘শিক্ষিত জাতি গড়ে তুলতে পারলে সমতলের ন্যায় আমরাও এগিয়ে যাবো’ বিয়াম ল্যাবরেটরী স্কুলের উদ্ধমুখী সম্প্রসারন ভবন উদ্বোধন করলেন রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বৃষ কেতু চাকমা কাপ্তাই নতুন বাজার বণিক কল্যাণ সমিতির নির্বাচন অনুষ্ঠিত বাঘাইছড়ির করেঙ্গাতুলী সড়কটি এখন মরণ ফাঁদ, দেখার যেন কেউ নেই বাঘাইছড়িতে সেতুর অভাবে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে হাজারো মানুষের চলাচল
১৪৪৮

খাগড়াছড়িতে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ধর্ষণ, আইনজীবীর যাবজ্জীবন

আলোকিত রাঙামাটি

প্রকাশিত: ২৯ জানুয়ারি ২০২০  


বিয়ের লোভ দেখিয়ে নারীকে ধর্ষণের দায়ে বেলাল হোসেন নামে এক আইনজীবীকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত। একই সঙ্গে ৫০ হাজার টাকা অর্থদণ্ড দেয়া হয়েছে।

বুধবার বিকেলে খাগড়াছড়ির নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুন্যালের ভারপ্রাপ্ত বিচারক রেজা মো.আলমগীর হাসান এ রায় প্রদান করেন।

বেলাল হোসেন খাগড়াছড়ি জেলার মাটিরাঙ্গার উপজেলার মাতব্বর পাড়া এলাকার আবদুল আক্কাসের ছেলে।

রাষ্ট্রপক্ষের পাবলিক প্রসিকিউটর অ্যাডভোকেট বিধান কানুনগো জানান, ২০১৪ সালের ২৬ জুন এক নারী ধর্ষণের অভিযোগে বেলাল হোসেনকে আসামি করে মাটিরাঙ্গা থানায় মামলা করেন।

এজাহারে উল্লেখ করা হয়, আসামি বেলাল হোসেন বিবাহের প্রলোভন দেখিয়ে একাধিকবার ওই নারীকে ধর্ষণ করেন। বিষয়টি সমাধানের জন্য স্থানীয়ভাবে উদ্যোগ নিলে আসামি বেলাল সালিশ থেকে পালিয়ে যায়। পরে ভিকটিম মামলা করলে মামলায় তদন্তকারী কর্মকর্তা মো. সুমন কুমার আদিত্য ২০১৪ সালের ১০ অক্টোবর অভিযোগ পত্র জমা দেন।

২০১৮ সালে স্বেচ্চায় আত্মসমর্পন করে জামিন নেয় বেলাল। বিজ্ঞ আদালত অভিযোগ গঠন করার পর সাত জন সাক্ষী সাক্ষ্য দেন। মামলাটি সাক্ষ্য প্রমাণে প্রমাণিত হওয়ায় আসামিকে যাবজ্জীবন ও অর্থদণ্ডে দণ্ডিত করে আাদালত। রায় প্রকাশের পর সন্তোষ প্রকাশ করেছে বাদী ও রাষ্ট্রপক্ষ।

আলোকিত রাঙামাটি
আলোকিত রাঙামাটি
পার্বত্য চট্টগ্রাম বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর