ব্রেকিং:
কাপ্তাইয়ের রাইখালীতে ইউপি সদস্য মংচিং মারমাকে অপহরণ করেছে দুর্বৃত্তরা রাঙামাটিতে দুর্বৃত্তের হামলায় ইউপিডিএফের এক কর্মী নিহত
  • বৃহস্পতিবার   ২০ ফেব্রুয়ারি ২০২০ ||

  • ফাল্গুন ৭ ১৪২৬

  • || ২৫ জমাদিউস সানি ১৪৪১

সর্বশেষ:
রাজস্থলীতে জোনকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত মহান শহীদ দিবস ও আর্ন্তজাতিক মাতৃ ভাষা দিবস উপলক্ষে রাঙামাটিতে শুরু হয়েছে অমর একুশে বই মেলা পাহাড়ের প্রতিটি এলাকায় সরকারের উন্নয়ন কর্মকান্ড পৌছে দিতে কাজ করছে বেশ কয়েকটি বিভাগ ও প্রতিষ্ঠান: এ,কে,এম মামুনুর রশিদ বাঘাইছড়িতে ট্রাক্টর উল্টে প্রাণ গেলো চালকের কঠোর আন্দোলনের হুশিয়ারী, কাপ্তাই উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যানের মুক্তির দাবিতে বিক্ষোভ সমাবেশ
৮৯

বসন্ত বাতাসে ভালোবাসার দোলা

আলোকিত রাঙামাটি

প্রকাশিত: ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

ফাইল ছবি


বছর ঘুরে বছর আসে, সঙ্গে করে নিয়ে আসে উৎসব। বাঙালির বারো মাসে তেরো পার্বণের কথা তো সবারই জানা। গতিময় জীবনকে আরেকটু গতিময় করতে, একঘেয়েমি কষ্ট আর দৈন্যতাগুলোকে দূর করতে এই অপরিহার্য উৎসবগুলো আমাদের প্রয়োজন। উৎসব আমাদের হাসায়, নতুন করে সাজতে শেখায়, বেঁচে থাকার অনুপ্রেরণা দেয় সবসময়। বাঙালির যে কয়টি উৎসব রয়েছে, তার মধ্যে বাংলা বর্ষবরণ, বসন্ত বরণ, পৌষ সংক্রান্তি ইত্যাদি ইত্যাদি। আজ সকালে উঠেছে বসন্তের প্রথম সূর্য। বাঙালিও প্রস্তুত ফাগুনের রঙে বসন্তকে বরণ করে নিতে। তবে বসন্ত এবার একা আসেনি, ক্যালেন্ডারের তারতম্যে একদিন পিছিয়ে সঙ্গে করে নিয়ে এসেছে ভালোবাসা দিবসকেও।

হ্যাঁ, এবার ভালোবাসা দিবস আর বসন্ত একসঙ্গে। কেউ বলছেন, ইশ, একই দিনে দুটো উৎসব পড়ে গেলো! মজা আর আনন্দ কমে গেলো একটা! কেউ আবার বলছে ছুটির দিনে দুটো উৎসব একসঙ্গে পড়ায় ভালোই হলো, দুটো আনন্দ একসঙ্গে হলো, ভালোবাসার ফাগুনের রঙে আরও রঙিন হলো।

ফাগুনের আগুন মনের ক্লান্তি, ঘৃণা, জড়তা দূর করে ভালোবাসাকে আরও বেশি রঙিন করতে পারে। সেজন্য ভালোবাসার এই দিনটি নিশ্চয়ই অনেক স্পেশাল আমাদের সবার কাছে। আর ভালোবাসা আছে বলেই ফাগুন ফিরে ফিরে আসে, প্রিয়জনের সান্নিধ্য আমাদেরকে পথ চলতে শেখায়, ভালোবাসা না থাকলে পৃথিবীটা এত সুন্দর হতো না, রঙিন ফুলগুলোও বোধহয় এতো ভালো লাগতো না যদি না মনে ভালোবাসা থাকতো।

শীতের বুড়ি চলে যাওয়ার পর বসন্তকাল বাংলার প্রকৃতিতে রমণীর রূপে আসে, রাজকীয় রূপে সাজে। শীতের ঝরেপড়া পাতার ফাঁকা জায়গা পূরণ করবে নতুন নতুন পাতা। রঙিন টকটকে সব ফুল, সেই সঙ্গে গাছে গাছে নাম জানা না জানা পাখির কিচিরমিচির আর কোকিলের কুহুতান। খুব আদর ভালোবাসায় মাখে প্রকৃতি। এই প্রকৃতিতে তো ভালোবাসতে ইচ্ছে করবেই। ভালোবাসা পেতে ইচ্ছে করবে। হারানো ভালোবাসাকে ফিরে পেতে মন চাইবে। মনে পড়ে কবিগুরুর সেই গান-

আমার প্রাণের `পরে চলে গেল কে

বসন্তের বাতাসটুকুর মতো

সে যে ছুঁয়ে গেল, নুয়ে গেল রে-

ফুল ফুটিয়ে গেল শত শত

সে চলে গেল, বলে গেল না-

এই যে ভালোবাসার মানুষের চলে যাওয়া, তাকে ফিরে পাওয়ার আকুতি বোধহয় এই রঙিন বসন্তেই বেশি আসে। তাই ভালোবাসা বোধ করার জন্য হলেও এমন রঙিন বসন্ত দরকার।

শুধু প্রকৃতি রঙিন হোক, এটাই শেষ নয়। ভালোবাসার জন্য মন শুদ্ধ আর রঙিন হওয়া একান্ত প্রয়োজন। মনের অন্তরালে ক্ষোভ, প্রতিহিংসা, রাগ, অহমিকা থাকলে ভালোবাসা সেখানে দানা বেঁধে বিস্তার করতে পারবে না। মন হতে হবে শুদ্ধ, রঙিন আর প্রাঞ্জল। এতে করে ভালোবাসা তৃপ্ত হয়।

ভালোবাসা তো একদিনের জন্য না, সবদিনের জন্য। কিন্তু জীবনে প্রতিদিন তো সমান নয়, কর্মব্যস্ত জীবনে চাইলেই তো প্রতিদিন ভালোবাসা প্রকাশ করা যায় না আয়োজন করে। কিন্তু একটা দিন না হয় একটু আয়োজন করে রঙিন বসন্তে ভালোবাসার প্রকাশ করুন। অন্যদিনগুলোতেও রঙিন ভালোবাসার স্বপ্ন বুনে নিন।

এই দিনটিতে শপথ নিন যে ভালোবাসা নিয়ে কখনো কৃপণতা করবেন না। ভালোবাসা সঠিকভাবে প্রকাশ করতে শিখুন। ভালোবাসার কাছের প্রিয় মানুষগুলোর হাতে হাসিমুখে ফুল উপহার তুলে দেবেন নিশ্চয়ই। আর বাকিদিনগুলোতে উপহার হাতে থাক না থাক, হাসিমুখটা যেন সবসময় থাকে। পরিবার, সমাজ, দেশ, পৃথিবীকে ভালোবাসুন সর্বোচ্চ। মনে রাখুন একটাই জিনিস, ভালোবাসা কখনো বিফলে যায় না। ভালোবাসলে ভালোবাসা ফিরে আসে। এই কঠিন জীবনে ভালোবাসাই পারে অনেককিছুকে সহজ করে দিতে। হিংসা বর্জন করুন, রাগ ক্রোধকে সারাজীবনের জন্য জলাঞ্জলি দিন।

বসন্তের সঙ্গে ভালোবাসাও সবার দ্বারে জাগ্রত হোক, আজকের এইদিনে এটাই হোক সবার কামনা।

আলোকিত রাঙামাটি
আলোকিত রাঙামাটি
জাতীয় বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর