আলোকিত রাঙামাটি
ব্রেকিং:
বাঙ্গালহালিয়ায় সড়ক দূর্ঘটনাঃ কাপ্তাইয়ের শিক্ষার্থী নিহত, আহত ২ রাঙামাটিতে প্রধানমন্ত্রীর দেয়া ঘর পাচ্ছেন আরো ৬২৩ গৃহহীন পরিবার
  • শনিবার   ১৯ জুন ২০২১ ||

  • আষাঢ় ৭ ১৪২৮

  • || ০৮ জ্বিলকদ ১৪৪২

সর্বশেষ:
রাঙামাটিতে করোনায় নতুন আক্রান্ত আরো ৮ জন। মোট আক্রান্ত হয়েছেন- ১৬০৩, মোট সুস্থ- ১৫১৯, মোট মৃত্যু ১৯ জন।

রাঙামাটিতে অবৈধভাবে কাঠ পাচারকালে আটক

আলোকিত রাঙামাটি

প্রকাশিত: ১৩ মে ২০২১  


রাঙামাটি (সদর) প্রতিনিধিঃ- ট্রাকে করে অভিনব কায়দায় রাঙামাটি শহর থেকে পাচারকালে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী ট্রাকসহ প্রায় ৬-৭ লক্ষ টাকার মূল্যের ২৫০-৩০০ ঘনফুট বিভিন্ন প্রকারের চিড়াই কাঠ ও দরজা আটক করে।

বৃহস্পতিবার (১৩ মে ২০২১) সকালে অবৈধ কাঠ পাচারের সময় রাঙামাটি সদর জোনের ঘাগড়া চেক স্টেশনে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী কর্তৃক অবৈধ কাঠ এবং ট্রাক আটক করা হয়।

গোপন সংবাদের ভিত্তিতে রাঙামাটি সদর জোনের আওতাধীন ঘাগড়া সেনা ক্যাম্প চেক পোষ্টে অবৈধ চিড়াই কাঠ ভর্তি ট্রাক আটক করার সময় চালক পালিয়ে যায়। আটককৃত ট্রাকের নাম্বার ঢাকা মেট্টো-ট ২২-৩৮২২ ট্রাকটি অবৈধ কাঠ পাচারকালে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী চিড়াই কাঠসহ ট্রাকটি জব্দ করে। কাঠ পাচার সিন্ডিকেট চক্রের সাথে পাহাড়ের অবৈধ অস্ত্রধারীদের সাথে সম্পর্ক রয়েছে।

গোপন সূত্রে জানা গেছে, এই অবৈধ কাঠ ব্যবসায়ি সিন্ডিকেট দীর্ঘ দিন যাবৎ অবৈধ আসবাবপত্র এবং কাঁঠ ব্যবসায়িদের সাথে সমন্বয়ে কুতুকছড়ি, ঘিলাছড়ি এবং রাঙামাটি পৌর এলাকা থেকে অভিনব কায়দায় অবৈধ কাঠ এবং আসবাবপত্র পাচার করে আসছিল। অবৈধ কাঠ ও আসবাবপত্র পাচার সিন্ডিকেট ধরতে আমরা দীর্ঘদিন ধরে কাজ করে আসছি। রাঙামাটি সদর জোন অবৈধ কাঁঠ ভর্তি ট্রাকটি পার্বত্য চট্টগ্রাম দক্ষিণ বন বিভাগের কাছে হস্থান্তর করেন।

রাঙামাটি সদর জোন কমান্ডার লেঃ কর্ণেল মোঃ রফিকুল ইসলাম (পিএসসি) জানান, ইতি পূর্বেও অভিনব কায়দায় তেলের ব্যাংকারে করে বিপুল পরিমান অবৈধ চিড়াই কাঁঠ নিয়ে যাওয়ার সময় সেনাবাহিনী কর্তৃক আটক করা হয়। ঠিক একই কায়দায় গত বৃহস্পতিবার (১ মে ২০২১) ভোরে অভিনব কায়দায় অবৈধ কাঠ এবং আসবাবপত্র পাচারকালে সেনাবাহিনী ঘাগড়া আর্মি ক্যাম্প তা জব্দ করে। এই কাঁঠ ও আসবাবপত্র সিন্ডিকেট চক্রটি দীর্ঘদিন যাবৎ অবৈধ ভাবে কাঠ ও আসবাবপত্র পাচার করে আসছে। এ কাঠ পাচার চক্রের সাথে পার্বত্য চট্টগ্রামের অবৈধ অস্ত্রধারীদের গভীর সম্পর্ক রয়েছে। ৭ হাত মাটির নিচে থাকলেও আমরা খুব শিগগরই এই চক্রটি খোজে বের করা হবে।আমাদের এ অভিযান অব্যাহত থাকবে। সম্প্রতি যারা তেলের ব্যাংকারে অবৈধভাবে কাঠ পাচার করেছিল ওই চক্রটিই এবার এই চালান টি নিয়ে যাচ্ছিল।

পার্বত্য চট্টগ্রাম দক্ষিণ বন বিভাগের বিভাগীয় কর্মকর্তা (ডিএফও) মোঃ রফিকুজ্জামান শাহ জানান, রাঙামাটি সদর জোন কর্তৃক অবৈধ কাঠ ও আসবাবপত্র পাচারকালে ঘাগড়া আর্মি ক্যাম্প গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আটক করে বন বিভাগের কাছে হস্থান্তর করেন। বন আইন অনুযায়ী দায়রা ও জজ কোর্টে মামলা করা হবে। আনুমানিক ২৫০-৩০০ ঘনফুট বিভিন্ন প্রকারের চিড়াই কাঠ ও দরজা উদ্ধার করা হয়েছে। যার বাজার মূল্য প্রায় ৬-৭ লক্ষ টাকার মূল্যের হতে পারে।

আলোকিত রাঙামাটি
আলোকিত রাঙামাটি