• বৃহস্পতিবার   ২৮ মে ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১৪ ১৪২৭

  • || ০৪ শাওয়াল ১৪৪১

সর্বশেষ:
মুষলধারে বৃষ্টি, কাপ্তাইয়ে পাহাড় ধ্বসের আশংকা করোনা প্রতিরোধে রাঙামাটি রেড ক্রিসেন্টের ৯০ লাখ টাকার ‘নগদ অর্থ সহায়তা’ প্রদান করোনা রোগী সনাক্ত হওয়ায় কাপ্তাই পানি বিদ্যুৎ কেন্দ্র এলাকা লকডাউন লংগদুতে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ফার্মাসিস্ট করোনা পজেটিভ কাউখালীতে করোনা আক্রান্ত পুলিশ সদস্যদের খোঁজ নিলেন ইউএনও
১৭৯

শাকসবজি জীবাণুমুক্ত করবে ঢাবি শিক্ষকের আবিষ্কৃত পাউডার

আলোকিত রাঙামাটি

প্রকাশিত: ২৪ এপ্রিল ২০২০  


শাক-সবজি ও ফলমুলকে জীবাণুমুক্ত করতে বিশেষ ধরনের পাউডার আবিষ্কার করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সেন্টার ফর অ্যাডভান্সড রিসার্চ ইন সায়েন্সেসের প্রিন্সিপাল সায়েটিস্ট ড. লতিফুল বারী। তাঁর আবিষ্কৃত পাউডার ব্যবহারে শাকসবজি ও ফলমুল থেকে সব ধরনের ব্যাকটেরিয়া, ভাইরাস, ফাঙ্গাস এমনকি করোনাভাইরাসও দূর করা সম্ভব হবে বলে দাবি করেছেন তিনি।

ড. লতিফুল বারী জানান, পাউডারটি মূলত ক্যালসিয়াম অক্সাইট ও ক্যালসিয়াম কার্বোনেটের মিশ্রণ। ডিম, শামুক, ঝিনুক প্রভৃতির খোসা প্রক্রিয়াজাত(পাইরোলাইসিস) করে এটি তৈরি করা হয়েছে।

এতে এন্টি-ব্যাকটেরিয়্যাল ও এন্টি-ফাঙ্গাল অ্যাকটিভিটি আছে। ফলে অল্প পরিমাণ ব্যবহারেই শাকসবজি-ফলমুল জীবাণুমুক্ত করা যাবে।  তিনি জানান, পানির সঙ্গে শতকরা একভাগ হারে পাউডার মিশিয়ে শাক-সবজি ধুয়ে নিলেই তা জীবাণুমুক্ত হবে। এটা এতটাই নিরাপদ যে খেয়ে ফেললেও কোনো সমস্যা নেই। ফলে বাড়িতে ব্যবহারের জন্যও আমরা সুপারিশ করছি।  কোনো প্রতিষ্ঠান যদি ব্যবসায়িক উদ্দেশ্যে এটির উৎপাদনে যেতে চায়, তাদের সব ধরনের সহযোগিতার কথাও বলেন এই গবেষক। এই পাউডার করোনাভাইরাস দূর করবে কিনা বিষয়ে তিনি জানান, ইবোলাভাইরাসসহ করোনাভাইরাসের চেয়ে বড় ভাইরাসগুলোও ধ্বংস করেছে এই পাউডার। তবে করোনাভাইরাস টেস্টের কোনো ল্যাবরেটরি না থাকায় এখনো নতুন এ ভাইরাসটির পরীক্ষা করতে পারিনি। তবে স্টাটিসটিক্স থেকে বলা যায়, এটি করোনাভাইরাসও ধ্বংস করবে।  ড. লতিফুল বারী বলেন, আমাদের দেশে শাক-সবজি বা ফলমুল জীবাণুমুক্ত করার জন্য পানি ছাড়া অন্য কিছু ব্যবহার করা হয় না। এতে মিশে থাকা ব্যাকটেরিয়া, ভাইরাস ও ফরমালিন মানবদেহের জন্য অত্যন্ত ক্ষতিকর। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কাছে থাকা এ পাউডার ব্যবহার করলে অনেক ক্ষতি থেকে রেহাই পাওয়া যাবে।

সূত্রঃ bd-pratidin.com

আলোকিত রাঙামাটি
আলোকিত রাঙামাটি
শিক্ষা বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর