আলোকিত রাঙামাটি
ব্রেকিং:
রাঙামাটিতে ছাত্রদলের বিক্ষোভ সমাবেশে দুই গ্রুপের মধ্যে হাতাহাতি
  • রোববার   ০৫ ডিসেম্বর ২০২১ ||

  • অগ্রাহায়ণ ২১ ১৪২৮

  • || ২৮ রবিউস সানি ১৪৪৩

CoronaBanner

করোনা আপডেট

০৪ ডিসেম্বর ২০২১

বাংলাদেশ

আক্রান্ত

১৭৬

সুস্থ

১৬২

মৃত্যু

রাঙ্গামাটি

আক্রান্ত

সুস্থ

মৃত্যু

সর্বশেষ:
রাঙামাটিতে নতুন করে আরো ১ জন করোনায় আক্রান্ত। মোট আক্রান্ত- ৪২৩৩, মোট সুস্থ- ৪১৯৩, মোট মৃত্যু ৩৪ জন।

পর্যটকদের বরণে প্রস্তুত প্রাকৃতিক নৈসর্গে ঘেরা রাঙামাটি

আলোকিত রাঙামাটি

প্রকাশিত: ১৮ আগস্ট ২০২১  

ফাইল ছবি 

প্রাকৃতিক নৈসর্গে ঘেরা রাঙামাটি প্রস্তুত পর্যটক বরণে। নতুন সাজে সাজানো হয়েছে শহরের হোটেল-মোটেল। পর্যটকদের চাহিদা মেটাতে বাড়তি প্রস্তুতি আছে ব্যবসায়ীদেরও। তবে মাস্ক পরিধান ছাড়া পর্যটন কেন্দ্রে প্রবেশ করা যাবে না। পর্যটকদের অবশ্যই স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে।

উল্লেখ্য, করোনা পরিস্থিতিতে প্রায় সাড়ে ৪ মাস ধরে বন্ধ আছে রাঙামাটির সব পর্যটন ও বিনোদন কেন্দ্র। এতে ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে খাত সংশ্লিষ্ট ব্যবসায়ীদের। অবশেষে আগামীকাল ১৯ আগস্ট থেকে পর্যটন কেন্দ্র খুলে দেয়ার ঘোষণায় আশায় বুক বাঁধছেন রাঙামাটির ব্যবসায়ীরা। দর্শনার্থীদের বরণে ব্যাপক প্রস্তুতি নিয়েছে। শেষ মুহূর্তের সংস্কার কাজের পাশাপাশি হোটেল-মোটেল ধোয়ামোছার কাজ চলছে। ব্যবসায়ীরা বলছেন, সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে থাকলে কয়েক মাসের মধ্যে ক্ষতি পুষিয়ে নেওয়া সম্ভব হবে। 

রাঙামাটি চেম্বারের হিসাব মতে, জেলায় পর্যটনের পাঁচটি খাতে দিনে গড়ে অন্তত সোয়া দুই কোটি টাকা ক্ষতি হয়েছে। তবে ব্যবসায়ীদের ধারণা দেশের পর্যটন কেন্দ্র খুলে দেওয়ায় দীর্ঘদিনের ক্ষতি কাটিয়ে উঠতে পারবে। 

পাহাড় ও হ্রদে ঘেরা মনোরম প্রকৃতির লীলাভূমি রাঙামাটিতে পর্যটকদের জন্য দেখার মতো রয়েছে, ঝুলন্ত সেতু, সাজেক ভ্যালি, কাপ্তাই লেক, পলওয়ে পার্ক, আরণ্যক, সুবলং ঝর্ণাসহ বেশ কয়েকটি দর্শনীয় স্থান।

কাপ্তাই লেকের বোট মালিক আলাউদ্দিন টুটুল জানান, দীর্ঘদিন পর্যটন ব্যবসা বন্ধ ছিলো। আমাদের বোটের চালকরা এতদিন বেকার ছিলো। তবে তাদের নিয়মিত বেতন দিতে হয়েছে। সরকার দেশের সকল পর্যটন কেন্দ্র খুলে দেয়ার কারণে আমরা এই বেকার সময়ে বোটের সৌন্দয্য বৃদ্ধি রং ও বিভিন্ন সমস্যা সমাধানে যান্ত্রিক কাজ সেরে রেখেছি।

রাঙামাটি পর্যটন করপোরেশনের ব্যবস্থাপক সৃজন বিকাশ বড়ুয়া জানান, সরকারি ঘোষণানুযায়ী স্বাস্থ্যবিধি মেনে রাঙ্গামাটি পর্যটন হলিডে কমপ্লেক্স খুলার প্রস্তুতি নিয়েছি। সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে পর্যটকদের সেবা দিতে সব ধরনের প্রস্তুতি এরই মধ্যে সম্পন্ন করেছি। দীর্ঘদিন পর কর্মচারীরা মনের খুশিতে কাজ করছে। আমরা আশাবাদী আমাদের লক্ষ মাত্রা পূরণ করতে পারবো।

রাঙামাটি জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ মিজানুর রহমান বলেন, ‘সরকারের সিদ্ধান্ত মোতাবেক স্বাস্থ্যবিধি মেনেই ১৯ আগস্ট জেলার পর্যটন স্পটগুলো খুলে দেয়া হচ্ছে। তবে পর্যটকদের স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করতে সংশ্লিষ্ট পর্যটন কেন্দ্রের কর্তৃপক্ষকে বলা হয়েছে। স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করতে প্রতিদিনই ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করা হবে। আর পর্যটকদের নির্বিঘ্নে রাঙামাটি ভ্রমণে পর্যটকদের নিরাপত্তা দিতে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীকে অবহিত করা হয়েছে ‘। 
 

আলোকিত রাঙামাটি
আলোকিত রাঙামাটি