• রাঙামাটি

  •  শুক্রবার, অক্টোবর ৭, ২০২২

শিক্ষা

আন্তর্জাতিক গণিত প্রতিযোগিতায় ‘বাংলাদেশ দল’ দশম

নিউজ ডেস্কঃ-

 প্রকাশিত: ১৩:১৪, ১৩ আগস্ট ২০২২

আন্তর্জাতিক গণিত প্রতিযোগিতায় ‘বাংলাদেশ দল’ দশম

বাংলাদেশ গণিত সমিতির তত্ত্বাবধানে ২৯তম আন্তর্জাতিক গণিত প্রতিযোগিতা (আইএমসি) ২০২২ অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে ৫০টিরও অধিক দেশের প্রায় সাত শতাধিক শিক্ষার্থীদের সঙ্গে প্রতিযোগিতা করে দলগতভাবে দশম হয় ‘বাংলাদেশ দল’। প্রতিযোগিতায় বাংলাদেশ দলের সম্মিলিত স্কোর- ১৯৭ দশমিক ৮০।

‘ইন্টারন্যাশনাল ম্যাথম্যাটিকস কম্পিটিশন ফর ইউনিভার্সিটি স্টুডেন্টস- ২০২২’ তাদের ওয়েবসাইটে এই ফল প্রকাশ করে। বাংলাদেশ এবার সর্বপ্রথম অনলাইন প্লাটফর্মে এই প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে। ‘বাংলাদেশ দল’ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণিত বিভাগ থেকে অনলাইন প্লাটফর্মের মাধ্যমে অংশগ্রহণ করে।

এ এফ মুজিবুর রহমান ফাউন্ডেশনের আর্থিক ও ব্যাকবন টেকনলোজি সহযোগিতায় বাংলাদেশ দল এই প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করেন তারা। আইএমসি বিশ্বব্যাপী আয়োজিত এই প্রতিযোগিতা সব স্নাতক শিক্ষার্থীদের জন্য উন্মুক্ত যাদের বসয়সীমা সর্বোচ্চ ২৩ বছর। এ বছর ১-৭ আগস্ট আমেরিকান ইউনিভার্সিটি ইন বুলগেরিয়া, বুলগেরিয়ায় অনুষ্ঠিত ইউনিভার্সিটি কলেজ লন্ডন (UCL) এর সহযোগিতায় প্রতিযোগিতাটি আয়োজন করা হয়েছে।

বীজগণিত, বাস্তব ও জটিল বিশ্লেষণ, জ্যামিতি ও কমভিনেটরি থেকে প্রশ্নপত্র প্রণয়ন করা হয়। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণিত বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ড. মো. শরীফুল ইসলাম বাংলাদেশ দলের কোচ- এর দায়িত্ব পালন করেন। একইসঙ্গে সমন্বয়কের দায়িত্ব পালন করেন বাংলাদেশ গণিত সমিতির সভাপতি ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণিত বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. মো. শহীদুল ইসলাম।

‘বাংলাদেশ দলের প্রতিযোগীদের ব্যক্তিগত স্কোর ও মেধাক্রম:

প্রতিযোগিতায় বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) কম্পিউটার বিজ্ঞান বিভাগের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থী সাব্বির রহমানের স্কোর- ৫৭। তার মেধাক্রম: ৫২-৫৩। তিনি প্রথম পুরস্কার পেয়েছেন। ব্রাক বিশ্ববিদ্যালয়ের গণিত ও পদার্থবিজ্ঞান বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী অন্তনি রায় চৌধুরীর স্কোর: ৪৮। তার মেধাক্রম- ৮৮-৯১। তিনিও প্রথম পুরস্কার পেয়েছেন। 

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণিত বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী মেহেদী হাসান নওশেদের স্কোর ৪৮। তার মেধাক্রম: ৮৮-৯১। তিনিও প্রথম পুরস্কার পান। একই বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটার বিজ্ঞান ও প্রকৌশল বিভাগের চতুর্থ বর্ষের জুবায়ের রহমানের স্কোর- ৪০। তার মেধাক্রম: ১৫২-১৬০। তিনিও প্রথম পুরস্কার পান৷ এছাড়া ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণিত বিভাগের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থী মো. হাসান কিবরিয়ার স্কোর- ৩১। তার মেধাক্রম- ২৬১-২৭৪। তিনি দ্বিতীয় পুরস্কার পেয়েছেন। 

বাংলাদেশ গণিত সমিতির সভাপতি ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণিত বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. মো. শহীদুল ইসলাম ডেইলি বাংলাদেশকে বলেন, বাংলাদেশ দলের অভাবনীয় সাফল্যের বাংলাদেশ গণিত সমিতির পক্ষ থেকে বাংলাদেশ দলকে আন্তরিক অভিনন্দন। বাংলাদেশ প্রথম এই আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে। এজন্য যারা সহযোগিতা করেছেন তাদের সবাইকে বাংলাদেশ গণিত সমিতির পক্ষ থেকে আন্তরিক কৃতজ্ঞতা ও ধন্যবাদ।

মন্তব্য করুন: