• রাঙামাটি

  •  রোববার, জুলাই ৩, ২০২২

রাঙ্গামাটি

জুরাছড়ির দুমদুম্যায় কোভিড-১৯ টিকা পায়নি ২৫শ’র অধিক জনগোষ্ঠী

 প্রকাশিত: ১৩:৩১, ৭ অক্টোবর ২০২১

জুরাছড়ির দুমদুম্যায় কোভিড-১৯ টিকা পায়নি ২৫শ’র অধিক জনগোষ্ঠী
ফাইল ছবি

জুরাছড়ি (রাঙামাটি) প্রতিনিধিঃ- জুরাছড়ি উপজেলার দুমদুম্যা ইউনিয়নের পাংখোয়া জনগোষ্ঠীসহ ২৫শ’র অধিক নাগরিক এখনো কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন পায়নি। দূর্গমতা ও নেটওয়ার্ক না থাকায় তারা ভ্যাকসিন প্রাপ্তি থেকে বঞ্চিত হতে পারে।

উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ ইউনিয়ন পরিষদ সূত্রে জানা গেছে, দুমদুম্যা ইউনিয়নের ৪ ওয়ার্ড করইদিয়া, দুলুছড়ি, ছোট করইদিয়া, শেমাইতুলী, নাশতলী, ভুয়াতুলী পাড়া, বুলংতুলী, লাতোয়ান পাড়া, বালুছড়াসহ ১২টি গ্রাম, ৫নং ওয়ার্ডের আনন্দ পাড়া, কালামনছড়ার ৬টি গ্রাম, ৬ নং ওয়ার্ডের আদেয় হাবছড়া, হজতুলীসহ ৬টি গ্রামের পাংখোয়াসহ ২৫শ অধিক নাগরিক রয়েছে। এই সব গ্রামে নৌ ও সড়ক যোগাযোগ নেই। পাহাড়ী রাস্তায় হেটে এসব গ্রামে পৌঁছাতে ৩ দিন সময় লেগে যায়। তিন দিন ভ্যাকসিন সঠিক তাপমাত্রা না তাকায় সেখানে টিকা প্রদান করা সম্ভব হচ্ছে না। 

দুমদুম্যা মৌজার প্রবিন হেডম্যান সমূর পাংখোয়া (৭০) বলেন, আমরা বয় বৃদ্ধ হয়েছি। সরকার বগাখালিতে টিকা প্রদান করলে অনেক উপকার হবে।

বগাখালি গ্রামের কার্বারী লংগ তঞ্চঙ্গ্যা (৬৮) বলেন, সরকার সারাদেশে কোভিড-১৯ টিকা দিচ্ছে। অথচ আমরা এখনো পাইনি।

দুমদুম্যা ইউনিয়নের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান সাধন কুমার চাকমা বলেন, এসব গ্রামের এলাকাবাসীদের কোভিড-১৯ টিকা প্রদানে উপজেলা প্রশাসন ও স্বাস্থ্য বিভাগের সাথে যোগাযোগ করা হচ্ছে। 

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ অনন্যা চাকমা জানান, স্বাস্থ্যকর্মী টিকা দিতে প্রস্তুত রয়েছে। ভ্যাকসিনের তাপমাত্রা সঠিক না থাকায় দুমদুম্যা ইউনিয়নের ৪, ৫ ও ৬ নং ওয়ার্ডের টিকা কার্যক্রম পরিচালনা করা সম্ভব হচ্ছেনা। বিষয়টি ইতিমধ্যে কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হয়েছে। 

উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান রিটন চাকমা সারাদেশের ন্যায় দুমদুম্যা ইউনিয়নে কোভিড-১৯ টিকা কার্যক্রম পরিচালনার জন্য সংশ্লিষ্ট সকলের সহযোগীতায় অনুরোধ জানান। 

উপজেলা নির্বাহী অফিসার জিতেন্দ্র কুমার নাথ বলেন, দুমদুম্যা ইউনিয়ন টিকা কার্যক্রম পরিচালনা জন্য হেলিকেপ্টার সার্পোট পাওয়ার জন্য গেল ২১ সেপ্টেম্বর জেলা প্রশাসকের কাছে আবেদন করা হয়েছে। 

আলোকিত রাঙামাটি

মন্তব্য করুন: