• রাঙামাটি

  •  শুক্রবার, জুলাই ১, ২০২২

ধর্ম

আমি কেন ইসলাম মেনে চলব?

ধর্ম ডেস্কঃ-

 প্রকাশিত: ১১:৩২, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২২

আমি কেন ইসলাম মেনে চলব?

মুসলমানকে আল্লাহর পক্ষ থেকে অনন্ত জান্নাতের প্রতিশ্রুতি দেয়া হয়।


আমি কেন ইসলাম মেনে চলব? এরূপ প্রশ্নের কিছু উত্তর নিয়ে এই লেখায় আলোচনা করা হলো।

ইসলাম অর্থ আল্লাহর নিকট আত্মসমর্পণ করা। এখন এই আত্মসমর্পণ দ্বারা কি ধরণের উপকারিতা আসবে, তা জানা জরুরি। হযরত আদম আ: এর মাধ্যমে সূচনা হয় মানুষ এবং ইসলামের। নবুওয়তের সমাপ্ত হয় হযরত মুহাম্মদ সা: এর মাধ্যমে ।

ইসলাম অনুসরণ করার দ্বারা প্রত্যেক মুসলিম জীবনের প্রকৃত স্বাদ পেয়েছে।

১. মাধ্যম ব্যতীত স্রষ্টার সান্নিধ্য

একজন মধ্যস্থতাকারীর প্রয়োজন ছাড়াই, আল্লাহর সাথে একমাত্র তার উপাসনা করার মাধ্যমে একটি ব্যক্তিগত এবং প্রত্যক্ষ সম্পর্ক তৈরি হয়। কেউ এই ব্যক্তিগত সম্পর্ক অনুভব করে এবং আল্লাহ সর্বদা তাকে সাহায্য করার জন্য প্রস্তুত থাকেন। স্বাভাবিক ভাবে যে সম্পর্কে কোন মাধ্যম থাকে না সে সম্পর্ক অনেক দৃঢ় হয়।

২. জীবনের উদ্দেশ্য সম্পর্কে জানা

ইসলামের অনুসরণের দ্বারা মানুষ বুঝতে পারে তার জীবনের লক্ষ্য কি! খাও দাও, ফুর্তি কর এটা নয়। বরং মুসলমানের উদ্দেশ্য আল্লাহর সন্তুষ্টি অর্জনের মাধ্যম পরকালেন মুক্তি। একজন ব্যক্তি তার জীবনের আসল উদ্দেশ্য উপলব্ধি করে, যা আল্লাহকে স্বীকৃতি দেয় এবং তার আদেশগুলো অনুসরণ করার জন্য আগ্রহ সৃষ্টি করে।

৩. জীবন পরিচালনার দিক নির্দেশনা

কোনো ব্যক্তিকে কোরআনের মাধ্যমে একটি গাইডলাইন সরবরাহ করা হয়, যা তাকে জীবন জুড়ে গাইড করে। ইসলাম ধর্ম সব পরিস্থিতি সম্পর্কে সম্যক ধারনা রাখে এবং এর উত্তর সুস্পষ্টভাবে রয়েছে এবং জীবনের সর্বক্ষেত্রে সঠিক পদক্ষেপ গ্রহণের পন্থা সর্বদা একজন জানতে পারবেন।

৪. আত্মিক প্রশান্তি

একজন সত্যিকারের সুখ, শান্তি এবং অভ্যন্তরীণ প্রশান্তি খুঁজে পায়। ইসলামে ধর্মান্তরিত হওয়ার পরে, পূর্ববর্তী সমস্ত পাপ ক্ষমা করা হয়, এবং একজন ধার্মিকতা ও ধার্মিকতার নতুন জীবন শুরু হয়। এবং একজন মুসলিম হিসেবে, এর পরে যখন কেউ ভুল করে, তখন সে সর্বদা আল্লাহর কাছে অনুতপ্ত হতে পারে যিনি আন্তরিকভাবে তার অনুতাপকারীদের পাপ ক্ষমা করেন। স্বীকারোক্তি দেওয়ার জন্য কোনো মধ্যস্থতাকারীর প্রয়োজন হয় না।

৫. সৃষ্টিকে ভালোবাসার শিক্ষা

ইসলামের মৌলিক শিক্ষা হলো মানুষকে সাহায্যে সহযোগিতা করা। অন্যের বিপদ আপদে এগিয়ে আসা। মানুষ যখন এভাবে অন্যের বিপদে এগিয়ে আসবে তখন পরস্পরের মধ্যে তৈরি হবে মহাব্বত। সমাজে আসবে শান্তি এবং শৃঙ্খলা। সমাজ থেকে দূর হবে অন্যায় এবং পাপাচার। ফলে, প্রতিটি সমাজ হবে তখন আদর্শ সমাজ।

৬. বিগত জীবনের গুনাহ মাপ

ইসলাম মেনে চলার দ্বারা পূর্বের সব গুনাহ মাফ হয়ে যায়। অর্থাৎ, ইসলাম গ্রহণের সঙ্গে সঙ্গে তার নতুন জীবনের সূচনা হয়। তাই, এটা প্রত্যেক মানুষের জন্য এক বিশাল পাওয়া। পূর্বে তার সকল গুনাহ মাফ হয়ে যাবে, কারণ পূর্বে তার ইসলাম এবং আল্লাহ সম্পর্কে সহীহ বুঝ ছিল না।

৭. জান্নাত লাভের প্রতিশ্রুত

সর্বাধিক উপকারটি হলো একজন মুসলমানকে আল্লাহর পক্ষ থেকে অনন্ত জান্নাতের প্রতিশ্রুতি দেয়া হয়। সেখানে তারা কোনোরকম অসুস্থতা, ব্যথা ছাড়াই চির আনন্দিত অবস্থায় বেঁচে থাকবে। আল্লাহ তাদের প্রতি সন্তুষ্ট থাকবেন এবং তারাও আল্লাহর প্রতি সন্তুষ্ট হবে। এমনকি জান্নাতিদের মধ্যে সর্বনিম্ন স্তরের জান্নাতিও পৃথিবীর মতো দশগুণ বড় জান্নাত পাবে এবং সেখানে তারা যা চায় তাই পাবে।

ইসলাম পালনের উপকারিতা আসলে লিখে শেষ করা যাবে না। প্রকৃত ইসলাম পালনের মাধ্যমে তা উপলব্ধি করতে হবে।

মন্তব্য করুন: